সংবাদ সংক্ষেপ

পর্যাপ্ত ফল ও সবজি না খেলে যা হয়

সুস্থভাবে বেঁচে থাকার জন্য প্রতিদিন পর্যাপ্ত পুষ্টি, ভিটামিন ও মিনারেল দরকার। আপনার যদি চলাফেরা করা বা কাজ করার মতো শক্তি না থাকে তাহলে আপনি সুস্থভাবে বেঁচে থাকবেন কী করে। এজন্য চাই পর্যাপ্ত পরিমাণে ফলমূল ও সবজি খাওয়া।

আমাদের বর্তমান প্রজন্ম বাইরের তৈলাক্ত খাবার বা জাঙ্ক ফুড খেতে বেশি পছন্দ করে। কিন্তু এটা ভুলে গেলে হবে না যে, তাজা ফল ও সবজির কি পরিমাণ দরকার আমাদের শরীরের জন্য। অপর্যাপ্ত ফল বা সবজি খেলে অনেক শারীরিক সমস্যা দেখা দিতে পারে। আসুন জেনে নিই সেই সমস্যাগুলো সম্পর্কে।

ভিটামিনের অভাবঃ
পর্যাপ্ত পরিমাণে শাক সবজি এবং ফলমূল না খেলে আপনার শরীরে ভিটামিনের অভাব থেকে যেতে পারে। যা পরবর্তীতে বড় ধরনের রোগ আকারে দেখা দেয়। জন হপিংস ইউনিভার্সিটির একটি গবেষণায় বলা হয় যে, মাত্র ১১ শতাংশ প্রাপ্ত বয়স্ক মানুষ প্রতিদিন ভালোভাবে বাঁচার জন্য সবজি ও ফল খান।

মিনারেলের অভাবঃ
মিনারেল বা খনিজ আসে মূলত সবজি থেকে। আমরা যদি খাদ্য তালিকা থেকে সবজিকে এড়িয়ে চলি তাহলে শরীরে মিনারেলের ঘাটতি হতে পারে। ইউনিভার্সিটি অব টেক্সাসের একটি গবেষণায় বলা হয়েছে, যারা ফল ও সবজি থেকে দূরে থাকেন তাদের শারীরিক বৃদ্ধিও কম

খাবার হজমে সমস্যাঃ
বেশিরভাগ শাকসবজি খাবার হজম করতে সাহায্য করে। কারণ শক্ত আঁশযুক্ত খাবার সহজে হজম হতে চায় না। সবজি সেই খাবারগুলোকে হজম করতে সাহায্য করে। তাই প্রতিবেলার খাদ্য তালিকায় শাকসবজি রাখা উচিত। সকালে এবং দুপুরে খাওয়ার পরে ফল খাওয়া উচিত। সকালে নাস্তার সঙ্গে ফলের জুস খুবই উপাদেয় খাবার।

ক্যান্সারের সেল বৃদ্ধিঃ
তাজা শাকসবজি এবং ফলমূল ক্যান্সারের সেল ধ্বংস করতে সহায়তা করে। কিন্তু আপনি যখন এই শাকসবজি এবং ফলমূল থেকে দূরে থাকেন তখন আপনার শরীরে ক্যান্সারের সেল বা কোষ বাসা বাধতে পারে।

ওজন বৃদ্ধিঃ
শাকসবজি না খেয়ে শুধুমাত্র শক্ত আঁশ জাতীয় খাবার খেলে আপনার ওজন বেড়ে যাবে তর তর করে। এছাড়া তৈলাক্ত খাবার বা জাঙ্ক ফুডের কারণেও ওজন বৃদ্ধি পায়। তাই ওজন নিয়ন্ত্রণে রাখতে বেশি করে শাকসবজি এবং ফলমূল খান।

রক্তচাপ বৃদ্ধিঃ
তৈলাক্ত বা জাঙ্ক ফুড আপনার রক্তচাপের মাত্রা নিয়ন্ত্রণে রাখে না। বরং বেশির ভাগ ক্ষেত্রে এটি রক্তচাপ বাড়িয়ে দেয়। রক্তচাপের মাত্রা ঠিক রাখতে চাইলে শাকসবজি এবং ফলমূল খেতে হবে।

হৃদরোগের সম্ভাবনাঃ
অতিরিক্ত মাংস প্রিয়তা ভালো নয়। এতে হৃদরোগের সম্ভাবনা বেড়ে যায়। মৃত্যু ঝুঁকিও বেড়ে যায়। বুকে ব্যথা অনুভূত হয়। পর্যাপ্ত পরিমাণ সবজি এবং ফলমূল খেলে তবেই ভালো থাকবে আপনার হৃদযন্ত্র।

মানসিক সমস্যাঃ
অপর্যাপ্ত সবজি এবং ফল খাওয়ার ফলে যে শুধু শারীরিক সমস্যা হতে পারে এমনটা নয়। এর কারণে মানসিক সমস্যাও হতে পারে। যেমন দুশ্চিন্তা। হ্যাঁ, পর্যাপ্ত পরিমাণ সবজি এবং ফলমূল না খেলে আপনার দুশ্চিন্তার পরিমাণ বৃদ্ধি হতে পারে।

সবার সব ধরনের সবজি বা ফল খাওয়া উচিত নয়। এছাড়া বয়স ভেদে তালিকাও ভিন্ন হওয়া উচিত। তাই অবশ্যই ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী আপনার সবজি এবং ফল খাওয়ার তালিকা তৈরি করুন।

print

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

*

x

Check Also

আপনার মুখে দুর্গন্ধ? লবঙ্গ দিয়ে মাত্র ১০ মিনিটে দূর করুন মুখের দুর্গন্ধ

লবঙ্গকে আমরা কেবল মসলা হিসাবেই চিনি, এর হরেক রকম গুণের কথা সম্পর্কে অনেকেরই ঠিকঠাক মত জানা নেই। অবশ্য আমাদের দেশের বাজার ভরে গেছে নকল লবঙ্গ দিয়ে। লবঙ্গ থেকে আর নির্যাস বের করে কেবল গুনহীন খোসাটুকু মশলা হিসাবে বাজারে বিক্রি হয় আজকাল যা আপনার জন্য মোটেও উপকারী নয়। আসল লবঙ্গ চিনে নেয়ার রয়েছে কিছু উপায়, একই সাথে এই আসল লবঙ্গের রয়েছে দারুণ সব উপকারিতা ও ব্যবহার। চলুন, জেনে নিই জাদুকরী এই মশলার গুণের কথা। ১. দাঁত ব্যথা করছে? কয়েকটি লবং থেঁতো করে আক্রান্ত স্থানে দিয়ে রাখুন, দাঁত ব্যথার নিশ্চিত উপশম হবে। লক্ষ্য করলেই দেখবেন, বেশিরভাগ টুথপেস্টই লবঙ্গ থাকার দাবী করে। ঠিক ...

আপনার হাতের রেখা আপনার ব্যক্তিত্ব সম্বন্ধে কিছু আশ্চর্যজনক কথা প্রকাশ করে…

আপনার হাতের রেখা- কখনো ভেবেছেন কি আপনার হাতের এই রেখা কি বলে ? তারা কেন আছে ? এবং কেন এইসব রেখা বিচারক এত বিখ্যাত ? হাতের রেখা একজনের সম্বন্ধে অনেক কিছু বলে। অভ্যাস থেকে ব্যক্তিত্বের বৈশিষ্ট সবকিছুই এই রেখা দেখে বোঝা যায়। মূলত হাতে চারটি লাইন রয়েছে যা প্রধানতম। চারটি লাইন হল জীবনযাত্রা, হৃদয়পথ, শিরোনাম এবং ভাগ্য রেখা। এই রেখার মধ্যে অনেক ঘটনা লুকানো আছে। আমাদের মধ্যে কারুর রেখা ছিন্ন আছে, কারুর রেখা ভাঙ্গা আছে, কারুর আছে গভীর এবং সোজা রেখা, কারুর দুর্বল । এমন অনেক সময় গেছে যখন আমরা অলসভাবে বসে থেকেছি এবং আমাদের হাতের দিকে তাকিয়ে থেকেছি, ভবিষ্যতে কি ...

WP Facebook Auto Publish Powered By : XYZScripts.com