মিটার গেজ লাইনের জন্য আরো ১০০ কোচ মেরামত করবে বাংলাদেশ রেলওয়ে

2017-01-10_6_258670

বাংলাদেশ রেলওয়েকে আধুনিককায়নের অংশ হিসেবে মিটার গেজ লাইনের জন্য আরো ১০০ কোচ মেরামত করতে সরকার একটি প্রকল্প গ্রহণ করেছে।
রেলওয়েমন্ত্রী এম মুজিবুল হক আজ বাসসকে বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বর্তমান সরকার জনগণের জন্য আন্তরিকভাবে জনপ্রিয় এই গণপরিবহন সহজতর করছে বলে সার্বিকভাবে রেলওয়ে সেবার উল্লেখযোগ্য উন্নতি হয়েছে।’
তিনি বলেন, জনগণের সন্তোষজনক পর্যায়ে নিয়ে যেতে বাংলাদেশ রেলওয়ে সেবার উন্নয়ন তার মন্ত্রণালয় বিভিন্ন উন্নয়ন প্রক্ল্প গ্রহণ ও বাস্তবায়ন করেছে।
এই প্রকল্পে মন্ত্রণালয় বাংলাদেশ রেলওয়ের নিজস্ব জনশক্তির ওপর ভিত্তি করে ডেভেলপমেন্ট অব প্রজেক্ট প্রোপোজাল (ডিপিপি) পুনর্গঠন করেছে এবং অনুমোদনের জন্য তা পরিকল্পনা কমিশনে পাঠিয়েছে।
পূব জোনে বাংলাদেশ রেলওয়ের ৯৩০টি কোচ রয়েছে। এর মধ্যে ৪৯৬টি পুরোপুরি অকেজো। আর ৫৭৫টি যাত্রিবাহী কোচ মেরামত করতে হবে। এই ৫৭৫টির মধ্যে ৪৫০টি মিটার গেজ লাইনের এবং ১২৫টি ব্রড গেজ লাইনের কোচ।
এই প্রকল্প অনুযায়ী বাংলাদেশ রেলওয়ে মিটার গেজ লাইনের ১০০টি কোচ মেরামত করবে। এর মধ্যে ৪৬টি দ্বিতীয় শ্রেণীর, ২০টি দ্বিতীয় শ্রেণীর লাগেজ ব্রেক, ১৮টি শোভন চেয়ার, ৭টি ডাইনিং কার ডাইনিং কারসহ একটি শোভন চেয়ার, লাগেজ ব্রেক ভ্যানসহ ৬টি শোভন চেয়ার ও ব্রেক ভ্যানসহ ২টি শোভন চেয়ার কোচ।
এ ছাড়া ২০০৯ সাল থেকে আওয়ামী লীগ সরকার ২৮৮টি বগি ও ২৭৭টি ফ্ল্যাট ওয়াগন মেরামত করেছে। এ সময় যুক্ত হয়েছে ৫১৬টি ফ্ল্যাট ওয়াগন ও ৩০টি ব্রেক ভ্যান।
রেলওয়ে মন্ত্রণালয় ১০৬টি নতুন ট্রেন চালু করেছে এবং ৩০টি ট্রেন সার্ভিস সম্প্রসারণ করেছে।
সরকার ২০১১ সালের ৪ ডিসেম্বর রেলওয়ে মন্ত্রণালয়কে পৃথক করেছে। ২০০৯ সালে ক্ষমতায় এসে সরকার ২৭,৭৮৭ দশমিক ৫১ কোটি টাকা ব্যয়ে এ পর্যন্ত ৫২টি প্রকল্প গ্রহণ করেছে।

print

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*


*

x

Check Also

download (1)

রাজধানীর কামরাঙ্গীচরে মাদকবিরোধী অভিযানে রশিদের বাড়ি গোডাউন থেকে ৮৩ কেজি গাজা সহ ৪ জন গ্রেফতার

স্টাফ রিপোর্টার:  গতকাল ৫ জুন রাজধানীর কামরাঙ্গীচরে মাদক বিরুধী অভিযান চালিয়ে হুযুর পাড়া মধুমতি কারখানার সামনে  রশিদের গোডাউন থেকে ৮৩ কেজি গাজা সহ ৪ জন গ্রেফতার করেছে  কামরাঙ্গীচর থানা পুলিশ । একজন  আসামী পলাতক । তাদের বিরুদ্ধে মাদক মামলা হয়েছে ।  মাদকবিরোধী  অভিযানে নেতৃত্ব দেন অফিসার ইনচার্জ শাহীন ফকির (বিপিএম) বিগত দিনেও অফিসার ইনচার্জ  শাহীন ফকির মাদক বিরোধী অভিযান চালিয়ে  ব্যাপক সুনাম অর্জন করেছে ।

720180606061142

বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-২ উৎক্ষেপণের জন্য প্রাথমিক প্রস্তুতি এখন থেকেই শুরু

  ‘কোনো মানুষের যদি দেশের প্রতি ভালোবাসা থাকে, মানুষের প্রতি ভালোবাসা থাকে, কেউ যদি স্বাধীনতায় বিশ্বাস করে এবং স্বাধীন-সার্বভৌম বাংলাদেশ বিশ্বে উন্নত হতে, মাথা উঁচু করে চলবে এই ধরনের চিন্তা চেতনা যদি কারো থাকে, তাহলে কেউ ওই ধরনের মন্তব্য করতে পারবে না।’ ‘এভাবে অর্বাচীনের মতো, অজ্ঞর মতো কথা বলা, তাদের পক্ষেই সম্ভব। এ থেকেই জাতি বুঝতে পারে তারা আসলে দেশকে ভালোবাসে না…’ । ‘না, একেবারে অর্বাচীন, অজ্ঞ, টেকনোলজি সম্পর্কে কোনো ধারণাই নেই, এখান থেকেই বুঝা যায়। এরা দেশ চালিয়েছে, তাহলে দেশের উন্নতি হবে কীভাবে? এরা ক্ষমতায় আসলে দেশ উন্নত হবে না।’ ‘তাদের চিন্তা ভাবনা এত সংকীর্ণ, যখন এই অঞ্চলে সাবমেরিন ...

Facebook Auto Publish Powered By : XYZScripts.com